ইনজুরিতে পড়েছেন তাসকিন

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজেকে সামনে রেখে রোববার দলগত অনুশীলন শুরু করেছে বাংলাদেশ। স্কোয়াডে থাকায় অনুময়েভাবেই দলের সঙ্গে যোগ দিয়েছিলেন তাসকিন আহমেদ। প্রথমদিনের অনুশীলনে কোনো সমস্যা না হলেও গতকাল (সোমবার) ইনজুরিতে পড়েছেন ডানহাতি এই পেসার।

নেটে অনুশীলন করার সময় তামিম ইকবালের স্ট্রেইট ড্রাইভ করা বল আটকাতেই গিয়েই বিপাকে পড়তে হয় তাকে। ফলে তার বাঁহাতের বৃদ্ধাঙ্গুলি ও তার পাশের আঙুলের মাঝামাঝি জয়েন্ট ফেটে গেছে। যে কারণে তার হাতে তিনটি সেলাই দিতে হয়েছে। সেই সঙ্গে ৭২ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে এই পেসারকে।

যদিও ওয়ানডে সিরিজে তাকে নিয়ে বেশ আশাবাদী বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। কারণ শুধু মাত্র হাতের চামড়াতে সমস্যা হয়েছে তার। তারপরও আগামী ৭২ ঘণ্টা অনুশীলন করতে পারবেন না তাসকিন।

বিসিবির চিকিৎসক ডাক্তার মনজুর হোসাইন চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘তাসকিন আল্লাহর রহমতে ভালো আছে। গতকাল (সোমবার) তিনটা সেলাই পড়ছে। সে আমাদের কাছে ৭২ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে আছে। শুধুমাত্র চামড়ার সমস্যা হয়েছে, এর চেয়ে বেশি কিছু না। এটা ছোট একটা ইনজুরি। এখন পর্যন্ত আশা করা যায় সে ওয়ানডে সিরিজ খেলবে। যেহেতু সে যে হাত দিয়ে বল করে সেই হাতে ইনজুরি না।’

গেল কয়েক বছর ধরে দুর্ভাগ্য পিছু ছাড়ছে না তাসকিনের। ঘরোয়া টুর্নামেন্টগুলোতে দারুণ পারফরম্যান্স করে তাসকিন যখনই জাতীয় দলে ফেরার স্বপ্ন বুনছেন তখনই হানা দেয় ইনজুরি। গেল কয়েক বছর ধরে কিছু দিন পর পরই ইনজুরিতে পড়তে দেখা গেছে এই পেসারকে। জাতীয় দলের হয়ে নিজেকে বিলিয়ে দিতে লকডাইনে কঠোর পরিশ্রম করেছিলেন তিনি। যার ফলও পেয়েছিলেন হাতেনাতে। ইনজুরি কাটিয়ে বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপে নজর কাড়া পারফরম্যান্স করেছিলেন এই পেসার। যদিও বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে আশানুরূপ পারফরম্যান্স করতে পারেননি তিনি। তারপরও ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের প্রাথমিক স্কোয়াডে জায়গা পেয়েছেন তিনি। তবে সেখানেও বাগড়া দিয়েছে ইনজুরি।