নাচতে নাচতে সিংহের মুখে চাঙ্কি পান্ডে

বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা চাঙ্কি পান্ডে। অভিনয় ক্যারিয়ারে অনেক জনপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন। কিন্তু চলচ্চিত্রের গল্প বা চরিত্র বাস্তবসম্মতভাবে ফুটিয়ে তোলার জন্য অনেক কিছুই করতে হয় অভিনয়শিল্পীদের। কখনো কখনো তারা জীবনের ঝুঁকিও নিয়ে থাকেন। এমনই এক অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছেন চাঙ্কি পান্ডে।

ঘটনাটি ১৯৯২ সালের। ‘বিশ্বাত্মা’ সিনেমার রোমান্টিক একটি গানের শুটিং করতে আফ্রিকার গহীন জঙ্গলে গিয়েছিলেন চাঙ্কি পাণ্ডে। কিন্তু পুরো টিম নিয়ে শুটিং করতে গিয়েই ঘটে বিপত্তি! কারণ মানুষের উপস্থিতি টের পেয়ে ভয়ে পালিয়ে যায় পশুপাখি। এদিকে গানের জন্য পশুপাখির উপস্থিতি জরুরি ছিল। ব্যর্থ হয়ে পরের দিন কয়েকজন ক্রু ও নায়ক-নায়িকা নিয়ে জঙ্গলে পৌঁছান পরিচালক। অপেক্ষাকৃত ছোট টিম হওয়ায় এবার কোনো সমস্যা হয়নি। শুরু হয় শুটিং। গাড়ি থেকে নেমে মনের আনন্দে নায়িকার সঙ্গে পায়ে পা মিলিয়ে নাচতে শুরু করেন চাঙ্কি পান্ডে। আর তখন তার পেছনে ঘুরে বেড়াচ্ছিল বন্যপ্রাণীরা। গানের জন্য ঠিক যেমনটা দরকার ছিল!

এ পর্যন্ত সবকিছু ঠিকই ছিল। কিন্তু নাচের ছন্দে ছেদ পড়ে হঠাৎ গাড়ি থেকে একদল টুরিস্ট নামার পর। কারণ তারা নানাভাবে ইশারা করতে থাকেন। বিষয়টি উল্লেখ করে চাঙ্কি পান্ডে বলেন—ওই টুরিস্টদের ইশারায় মনে হচ্ছিল, সেখান থেকে সরে যাওয়ার জন্য বলা হচ্ছে। তাই পেছনে ফিরে দেখি, ঠিক ২৫ ফুট দূরে এক সিংহ দম্পতি দাঁড়িয়ে আমাদের দিকে চেয়ে আছে! ওরা যেন বোঝার চেষ্টা করছিল, আমরা আসলে কী করছি। এরপর আর এক মুহূর্তও সেখানে থাকিনি।

রাজিব রায় পরিচালিত ‘বিশ্বাত্মা’ সিনেমাটি ১৯৯২ সালের ১৪ জানুয়ারি মুক্তি পায়। চাঙ্কি পান্ডে ছাড়াও এতে অভিনয় করেছেন—সানি দেওল, নাসিরউদ্দিন শাহ, দিব্যা ভারতী, সোনম, অমরেশ পুরি, গুলশান গ্রোভার প্রমুখ। এ সিনেমার মাধ্যমে বলিউডে অভিষেক ঘটে দিব্যা ভারতীর। সিনেমাটি মুক্তির পর বক্স অফিসে দারুণ সাড়া ফেলেছিল।