অজ্ঞতাবশত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ভুল কথা বলছে ডা. জাফরুল্লাহ

11

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলছে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) অনুমোদন না দেয়ায় গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র আবিষ্কৃত র‌্যাপিড কিটস পরীক্ষার আপাতত কোনো সুযোগ নেই। তবে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলছেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কোনো ওষুধ বা এ সংক্রান্ত যন্ত্রপাতির নিবন্ধন অনুমোদন দেয় না। সেটা তাদের দায়িত্ব না।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বক্তব্যকে ভুল হিসেবে উল্লেখ করে ডা. জাফরুল্লাহ বলেছেন, ‘একবারে ভুল কথা বলছে। অজ্ঞতাবশত তাহারা (স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়) ভুল কথা বলিয়াছে। তারা নিজেদের জ্ঞানের অভাবে অন্যের শেখানো বুলি বলেছেন।

সোমবার (২৭ এপ্রিল) বিকেলে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে গণমাধ্যমে একথা বলে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। তিনি আরো বলেন, ‘ওষুধ বা যন্ত্রপাতির অনুমোদনের দায়িত্ব নিজ নিজ দেশের ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের। যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, ভারতসহ অন্যান্য দেশের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের অনুমোদন দেয়।

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, আমাদের বাংলাদেশেও আমাদের নিজস্ব প্রতিষ্ঠান ওষুধ প্রশাসন আছে অনুমোদন দেয়ার জন্য। অবশ্য ডব্লিউএইচওর কিছু গাইডলাইন ও তথ্য আছে। তবে তারা কোনো কিছুর রেজিস্ট্রেশন দেয় না।

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা আরো বলেন, তবে কিট পরীক্ষার জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে অনুরোধ করতে হবে সরকারের। আমাদের ওষুধ প্রশাসন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে যদি বলে, পরীক্ষা করে এটার কোয়ালিটি দেখেন, তারা করে দেবে। এই চিঠি লেখার দায়িত্ব হলো ওধুষ প্রশাসন অধিদপ্তরের।