সূচকের পতনের সঙ্গে ডিএসইতে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ

9

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার (৫ জুলাই) দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্য সূচক কমেছে। সূচকের পতনের সঙ্গে ডিএসইতে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। তবে সিএসইতে লেনদেন বেড়েছে।

সূচকের পতনের পাশাপাশি এদিনও লেনদেনে অংশ নেয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। তবে ডিএসইতে যে কয়কটি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বেড়েছে কমেছে তার থেকে বেশি। ফলে সূচকের কিছুটা পতন হয়েছে।

দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক ডিএসইএক্স আগের কার্যদিবসের তুলনায় ৫ পয়েন্ট কমে ৩ হাজার ৯৮১ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অপর দুই সূচকের মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক ৩ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৩৩৬ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। আর ডিএসই শরিয়াহ্ ১ পয়েন্ট কমে ৯২১ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

ডিএসইতে লেনদেন অংশ নেওয়া ৩০টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দাম বাড়ার তালিকায় নাম লিখিয়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ৩৬টির। আর ২১৪টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৭৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা। আগে কার্যদিবসে লেনদেন হয় ৮১ কোটি ১৮ লাখ টাকা। এ হিসাবে আগের কার্যদিবসের তুলনায় লেনদেন কমেছে ৭ কোটি ৭৮ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে আর ওয়াটার কেমিক্যালের শেয়ার। কোম্পানিটির ৭ কোটি ২৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দ্বিতীয় স্থানে থাকা বেক্সিমকো ফার্মার ৪ কোটি ২৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৪ কোটি ২১ লাখ টাকার লেনদেনের মাধ্যমে এর পরের স্থানে রয়েছে বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবলস।

এছাড়া লেনদেনের শীর্ষ ১০ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় রয়েছে- গ্লাস্কস্মিথকলাইন, সোনার বাংলা ইন্স্যুরেন্স, প্রভাতী ইন্স্যুরেন্স, ন্যাশনাল ব্যাংক, সেন্ট্রাল ফার্মাসিউটিক্যালস, ইন্দো-বংলা ফার্মাসিউটিক্যালস এবং লিন্ডসে বিডি।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই কমেছে ১০ পয়েন্ট। লেনদেন হয়েছে ৮৯ কোটি ৩৩ লাখ টাকা। লেনদেন অংশ নেওয়া ১০০ প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম বেড়েছে ১৯টির, কমেছে ২৩টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫৯টির।